এখন ঘরে ঘরে ইন্টারনেট ও কম্পিউটার আছে  , তাই আপনি চাইলে নিজেই BCS এর আবেদন ঘরে বসেই করে নিতে পারবেন  ।  আবেদন করতে হবে (bpsc.teletalk.com.bd / www.bpsc.gov.bd ) ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ।
১ম ধাপঃ  
সাধারণ, প্রফেশনাল অথবা যৌথ (সাধারণ ও প্রফেশনাল) ক্যাডারের মধ্যে যেকোনো একটি নির্বাচন করতে হবে ।

২য় ধাপঃ  
বিপিএসসি-১ ফরমের প্রথম অংশে
নাম, পিতা-মাতার নাম, জন্ম তারিখ, লিঙ্গ, কোটা, বর্তমান কাজের ধরন, বৈবাহিক অবস্থা, জাতীয়তা, বর্তমান ও স্থায়ী ঠিকানা, যোগাযোগের নম্বর এবং পরীক্ষার কেন্দ্রের ঘর পূরণ করতে হবে ।

৩য় ধাপঃ 
 শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং ক্যাডার তালিকার পছন্দক্রম পূরণ করতে হবে ।  আবেদন ফরমের নির্ধারিত স্থানে
প্রার্থীর ৩০০ বাই ৩০০ পিঙ্লে ও সর্বোচ্চ ১০০ কিলোবাইট আকারের রঙিন ছবি
এবং ৩০০ বাই ৮০ পিঙ্লে ও সর্বোচ্চ ৬০ কিলোবাইট আকারের স্ক্যান করা স্বাক্ষর আপলোড করতে হবে ।

যাচাইকরনঃ
আবেদন ফরম পূরণের পর Application Preview তে সব তথ্য ঠিক আছে কি না যাচাই করতে হবে এবং Validation Code দিয়ে আবেদন সাবমিট করতে হবে ।  Applicant’s Copy ডাউনলোড বা প্রিন্ট করে সংরক্ষণ করতে হবে এবং প্রাপ্ত User ID ব্যবহার করে টেলিটক মোবাইলের মাধ্যমে পরীক্ষার ফি জমা দিতে হবে ।

টেলিটক এর মাধ্যমে পরীক্ষার ফি জমাঃ
প্রথমে BCSUser ID লিখে পাঠাতে হবে ১৬২২২ নম্বরে ।
ফিরতি এসএমএসে প্রাপ্ত পিন নম্বরসহ BCSyespin লিখে আবার ১৬২২২ নম্বরে এসএমএস পাঠাতে হবে ।
পরীক্ষার ফির সমপরিমাণ টাকা কেটে ফিরতি এসএমএসে ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ড জানিয়ে দেওয়া হবে,
যা পরবর্তী সময়ে প্রবেশপত্র ডাউনলোডসহ বিভিন্ন কাজে লাগবে ।

আবেদনের যোগ্যতা :
আবেদনকারীর বয়স ২১ থেকে ৩০ বছর । মুক্তিযোদ্ধা, মুক্তিযোদ্ধার সন্তান, প্রতিবন্ধী, স্বাস্থ্য ক্যাডার, সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারে আবেদনকারী ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর প্রার্থীদের বয়সসীমা সর্বোচ্চ ৩২ বছর । সরকারি ও স্থানীয় কর্তৃপক্ষের অধীনে চাকরিরত প্রার্থীদের কর্তৃপক্ষের অনুমতিসহ আবেদন করতে হবে । সাধারণ প্রার্থীদের পরীক্ষার ফি ৭০০ টাকা এবং প্রতিবন্ধী, ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীভুক্ত বা তৃতীয় লিঙ্গের প্রার্থীদের জন্য ফি ১০০ টাকা । 

BCS পরীক্ষার মান বন্ঠনঃ
প্রিলিমিনারি পরীক্ষার মানবণ্টন ৩৫তম বিসিএস থেকে মানবণ্টনে পরিবর্তন এসেছে । নেওয়া হচ্ছে ২০০ নম্বরের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা। বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে ৩৫ নম্বর, ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্যে ৩৫, বাংলাদেশ বিষয়ে ৩০, আন্তর্জাতিক বিষয়ে ২০, ভূগোল, পরিবেশ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনায় ১০, সাধারণ বিজ্ঞানে ১৫, কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তিতে ১৫, গাণিতিক যুক্তিতে ১৫, মানসিক দক্ষতায় ১৫ নম্বর এবং নৈতিকতা, মূল্যবোধ ও সুশাসনে থাকবে ১০ নম্বর । 

বাংলা ভাষা ও সাহিত্যঃ 
বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় বাংলা ব্যাকরণ অংশে ভুল সংশোধন বা শুদ্ধকরণ, সমার্থক-বিপরীতার্থক শব্দ, সন্ধি, প্রত্যয়, সমাস, ধ্বনি, বর্ণ, শব্দ ও বাক্য সংকোচন থেকে প্রশ্ন আসে। সাহিত্য অংশে প্রাচীন যুগ থেকে চর্যাপদ, মধ্যযুগ থেকে মঙ্গল কাব্য, শ্রীকৃষ্ণকীর্তন-এসব বিষয় থেকে প্রশ্ন আসে। আধুনিক যুগ থেকে রবীন্দ্রনাথ, নজরুল, মধুসূদন দত্ত, জীবনানন্দ দাশ, শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়, সৈয়দ শামসুল হক, শামসুর রাহমান, সৈয়দ ওয়ালীউল্লাহ, আল মাহমুদ, বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় এসব কবি-সাহিত্যিকের সাহিত্যকর্ম থেকে বেশি প্রশ্ন আসে। ব্যাকরণ অংশের জন্য ড. সৌমিত্র শেখরের বাংলা ভাষা ও সাহিত্য জিজ্ঞাসা, নবম-দশম শ্রেণির বাংলা ব্যাকরণ, আর সাহিত্যের জন্য ড. হুমায়ুন আজাদের লাল নীল দীপাবলি ভালোভাবে পড়তে হবে ।

ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্যঃ  
Parts of speech, Right forms of verb, Appropriate word or Appropriate preposition, Transformation of sentences, Synonyms, Antonyms, Phrases and Idioms থেকে প্রশ্ন আসে। এ অংশে ভালো করতে হলে গ্রামারে ভালো দখল থাকতে হবে। Literature -এর ক্ষেত্রে বিভিন্ন সময়কাল, খ্যাতিমান কবি-সাহিত্যিকদের উক্তি, কবিতার লাইন, জীবনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা পড়তে হবে। যেমন-৩৫তম বিসিএসে প্রশ্ন হয়েছে-to be, or not to be, that is the question’- is the famous dialogue from? এ অংশে ভালো করার জন্য উল্লেখযোগ্য কবি-সাহিত্যিকদে র কবিতার পঙ্ক্তি, নাটকের সংলাপ, উপন্যাসের চরিত্র, প্রেক্ষাপট ভালোভাবে পড়তে হবে।

গাণিতিক যুক্তিঃ 
পাটিগণিতে ঐকিক নিয়ম, লসাগু, গসাগু, শতকরা, লাভ-ক্ষতি, সুদকষা, অনুপাত-সমানুপাত, বীজগণিতে মূলদ ও অমূলদ সংখ্যা, উৎপাদক নির্ণয়, সমীকরণ, অসমতা, সূচক ও লগারিদমের সূত্রের প্রয়োগ, জ্যামিতিতে রেখা, কোণ, পিথাগোরাসের উপপাদ্য, বৃত্ত, ত্রিভুজ, চতুর্ভুজসংক্রান্ত উপপাদ্য, পরিমিতিতে সেট, বিন্যাস, সমাবেশ ও সম্ভাব্যতা থেকে প্রশ্ন আসে। অষ্টম থেকে দশম শ্রেণির বোর্ড বইয়ের প্রতিটি নিয়মের অঙ্ক সমাধান করলে ভালো করা যাবে। বিন্যাস, সমাবেশ, সম্ভাব্যতার জন্য একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণির বই দেখতে হবে। কম সময়ে সমাধানের জন্য বারবার চর্চা করতে হবে।

মানসিক দক্ষতা: 
বানান শুদ্ধিকরণ ও ভাষার প্রয়োগ, সমস্যার সমাধান, সম্পর্ক নির্ণয়, গাণিতিক যুক্তি অভীক্ষা, ভারবাল রিজনিং থেকে প্রশ্ন হয়ে থাকে। যেমন-কোনো বিয়ের অনুষ্ঠানে হঠাৎ করে আপনার পোশাকটি বিশ্রীভাবে ছিঁড়ে নষ্ট হয়ে গেল। এ অবস্থায় কী করবেন? এসব প্রশ্নের সঠিক উত্তর দিতে হলে বারবার চর্চা করতে হবে। সেনা, নৌ ও বিমান বাহিনী রিক্রুটিং গাইডের এ অংশ অনুশীলন করলে ভালো ফল পেতে পারেন। ডিসকভারি, ন্যাশনাল জিওগ্রাফি চ্যানেল দেখলে কাজে দেবে।

সাধারণ বিজ্ঞানঃ
পদার্থের অবস্থা, এটমের গঠন, এসিড, ক্ষার, লবণ, শব্দ ও তরঙ্গ, শক্তির উৎস, রূপান্তর, তড়িৎ কোষ, ট্রান্সফরমার, এক্স-রে, তেজস্ক্রিয়তা, কসমিক রে, হিগ-বোসন কণা, আপেক্ষিক তত্ত্ব, জেনেটিক্স, জীববৈচিত্র্য, সালোক সংশ্লেষণ, ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া, খাদ্য ও পুষ্টি-এসব বিষয় থেকে প্রশ্ন বেশি থাকে। প্রশ্ন হতে পারে গোয়েন্দা বিভাগে কোন রশ্মি ব্যবহৃত হয়? হিমোগ্লোবিন কোন জাতীয় পদার্থ ?

কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তিঃ
কম্পিউটারের ইতিহাস, অঙ্গসংগঠন, প্রকারভেদ, অপারেটিং সিস্টেম, ই-কমার্স, কম্পিউটার নেটওয়ার্ক, ইন্টারনেট, স্মার্টফোন, ক্লাউড কম্পিউটিং, সোশ্যাল নেটওয়ার্ক (ফেসবুক, টুইটার, ইনস্ট্রাগ্রাম), সাইবারক্রাইম, তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান (গুগল, মাইক্রোসফট, আইবিএম, ওরাকল) এসব বিষয় থেকে প্রশ্ন হতে পারে। যেমন-টুইটার কত সালে চালু হয়? কম্পিউটারের মেমোরি তৈরি হয় কী দিয়ে ?

নৈতিকতা, মূল্যবোধ ও সুশাসনঃ 
নৈতিকতা, মূল্যবোধ ও সুশাসন সম্পর্কীয় বিভিন্ন প্রবন্ধ, পত্রিকার সম্পাদকীয়, বেসরকারি সংস্থার এ-সংক্রান্ত প্রকাশনা, বিশ্বব্যাংকের বিভিন্ন প্রতিবেদন পড়লে ভালো করা সম্ভব এ অংশে। প্রশ্ন আসতে পারে, সরকার ও সুশাসন, মৌলিক শিক্ষা, শিক্ষার প্রয়োজনীয়তা, মূল্যবোধের শিক্ষা, সরকারের ভূমিকা থেকেও। যেমন-'সুশাসন' শব্দটি সর্বপ্রথম কোন সংস্থা সুস্পষ্টভাবে ব্যাখ্যা করে? সামাজিক মূল্যবোধের ভিত্তি কী ?

সহায়ক বইপত্র ভালো করার জন্য বোর্ড বই খুবই গুরুত্বপূর্ণ । পড়তে হবে ষষ্ঠ থেকে দশম শ্রেণির বাংলা, গণিত, বিজ্ঞান, সামাজিক বিজ্ঞান, ইতিহাস, ভূগোল, তথ্যপ্রযুক্তি বই। গণিত, কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তির জন্য একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণির বোর্ড বইও পড়তে হবে। সাধারণ জ্ঞানের জন্য নতুন বিশ্ব, আজকের বিশ্ব প্রভৃতি বই ছাড়াও তথ্যভিত্তিক মাসিক, যেমন-কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স, কারেন্ট ওয়ার্ল্ড সহায়ক হবে। বাজারে প্রফেসরস, ওরাকল, বিসিএসসহ বেশকিছু প্রকাশনীর গাইড বই পাওয়া যায়। বিগত পরীক্ষার প্রশ্ন সমাধান করলেও কাজে দেবে |


Close

Post a Comment

Use Comment Box ! Write your thinking about this post and share with audience.

Previous Post Next Post

Sponsord

Sponsord